মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

স্বাস্থ্য কর্মসূচী

চরণদ্বীপ ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সকর্তৃক গৃহীত স্বাস্থ্য কর্মসূচী

ইপিআই কর্মসূচীঃ

১। কর্মসূচীর নামঃ সম্প্রসারিত টিকাদান কর্মসূচী

২। কর্মসূচী বাসত্মবায়নকারীঃ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তা এবং তাহার আওতাধীন সকল স্বাস্থ্য কর্মী।

৩। অর্থায়ন ও অন্যান্য সহায়তাকারীঃ স্বাস্থ্য ও পঃ কঃ মন্ত্রণালয়, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ।

৪। লক্ষ্য ও পদ্ধতিঃ শিশুদের ০৮টি রোগের বিরম্নদ্ধে প্রতিরোধ টিকা প্রদান ও ভিটামিন এ ক্যাপসুল এর মাধ্যমে রাতকানা রোগ  ও অপুষ্টি প্রতিরোধ।      মায়েদের কে টিটি টিকার মাধ্যমে মা এবং নবজাতক শিশুর টিটেনাস প্রতিরোধ ব্যবস্থা। মায়েদের-কে ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানোর মাধ্যমে          মায়েদের এবং নবজাতক শিশুদের ভিটামিন এ এর ঘাটতি পুরন। মূল লক্ষ্য হচ্ছে, শিশু ভোগামিত্ম এবং মৃত্যুহার কমানো।
৫। আওতাভুক্ত সুবিধাভোগী জনগোষ্ঠীঃ ১৫-৪৯ বৎসরের সকল মহিলা এবং ০- ৬০মাস  বয়সী সকল শিশু।

ইওসি কর্মসূচীঃ

১। কর্মসূচীর নাম ঃ  প্রসুতি সেবা

২। কর্মসূচী বাস্তবায়নকারী : উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তা  এবং ই ও সি অমত্মর্ভুক্ত হাসপাতালসমূহের ডাক্তার ও নার্স।

৩। অর্থায়ন ও অন্যান্য সহায়তাকারী - স্বাস্থ্য ও পঃ কঃ মন্ত্রণালয়, ইউনিসেফ ।

৪। লক্ষ্য ও পদ্ধতি - নিরাপদ মাতৃত্ব ,বিপদ মুক্ত ডেলিভারী এবং শিশু ও মাতৃ মৃত্যু হার কমানো।

৫। আওতাভুক্ত সুবিধাভোগী জনগোষ্ঠী - সকল গর্ভবতী মা।

এআরআই কর্মসূচীঃ

১। কর্মসূচীর নাম - এ আর আই।

২। কর্মসূচী বাস্তবায়নকারী ঃ তত্বাবধায়ক/ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তাসহ প্রতিষ্ঠানের সকল ডাক্তার,
চিকিৎসা সহকারী, ফার্মাসিষ্ট, নার্স ।

৩। অর্থায়ন ও অন্যান্য সহায়তাকারী - স্বাস্থ্য ও পঃ কঃ মন্ত্রণালয়, ইউনিসেফ ।

৪। লক্ষ্যও পদ্ধতি - শিশুদের নিউমোনিয়া এবং শ্বাসনালী প্রদাহ জনিত রোগের চিকিৎসা এবং প্রকোপ কমানো।

৫। আওতাভুক্ত সুবিধাভোগী জনগোষ্ঠী ঃ সকল শিশু।

টিবি এবং লেপ্রোসী কন্ট্রোল কর্মসূচীঃ

১। কর্মসূচীর নামঃ যক্ষ্মা ও লেপ্রোসী কন্ট্রোল কর্মসূচী।

২। কর্মসূচী বাসত্মবায়নকারী : ব্র্যাক এবং স্বাস্থ্য বিভাগ যৌথভাবে।

৩। অর্থায়ন ও অন্যান্য সহায়তাকারী ঃ স্বাস্থ্য ও পঃ কঃ মন্ত্রণালয়।

৪। লক্ষ্যও পদ্ধতি : মূল লক্ষ্য হচ্ছে ওপেন কেইস সনাক্ত করে চিকিৎসা প্রদানের মাধ্যমে রোগের বিসত্মার
নিয়ন্ত্রন করা।

৫। আওতাভুক্ত সুবিধাভোগী জনগোষ্ঠী ঃ বাংলাদেশের সকল জনগোষ্ঠী।

আর্সেনিক  কর্মসূচীঃ

১। কর্মসূচীর নামঃ আর্সেনিকোসিস রোগ নির্ণয় কর্মসূচী ।

২। কর্মসূচী বাস্তবায়নকারীঃ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃ পঃ কর্মকর্তা এবং তাহার আওতাধীন সকল স্বাস্থ্য কর্মী।

৩। অর্থায়ন ও অন্যান্য সহায়তাকারী : স্বাস্থ্য ও পঃ কঃ মন্ত্রণালয়।

৪। লক্ষ্য ও পদ্ধতিঃ মূল লক্ষ্য হচ্ছে আর্সেনিকোসিস রোগ নির্ণয় এবং তাহার চিকিৎসা প্রদান।

৫। আওতাভুক্ত সুবিধাভোগী জনগোষ্ঠী : সকল জনগোষ্ঠী।

এ ছাড়াও অন্যান্য সকল ধরনের রোগের চিকিৎসা সেবা প্রদান করা হয়।


Share with :

Facebook Twitter